মৌলভীবাজারে সিএনজি চালক হত্যাকারী সহ সাত ছিনতাইকারী গ্রেফতার

January 15, 2014, এই সংবাদটি ১৭৯ বার পঠিত

 à¦®à§Œà¦²à¦­à§€à¦¬à¦¾à¦œà¦¾à¦° মডেল থানা পুলিশ সিএনজি চালক হত্যার সাথে জড়িত সাত ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করেছে। ১৪ জানুয়ারী মঙ্গলবার রাতে সদর উপজেলার বাহারমর্দান গ্রাম থেকে একটি ছিনতাইকৃত সিএনজি অটোরিক্সাসহ ৭ ছিনতাইকারীকে আটক করে। 

পুলিশ জানায়, গত ১২ জানুয়ারি ধৃত টিটু, ওয়েছ ও সুবীর তিনজন মিলে হবিগঞ্জের বাহুবলের মীরপুর এলাকা থেকে চালকসহ একটি সিএনজি অটোরিক্সা ছিনতাই করে। এরপর ছিনতাইকারীরা কামাইছড়া এলাকায় সিএনজি চালক সিরাজ মিয়া কে হত্যা করে সিএনজি নিয়ে পালিয়ে যায়।

পরে মৌলভীবাজার সদর উপজেলার বাহারমর্দান গ্রামে অটোরিক্সাটি বিক্রির জন্য নিয়ে আসে। মৌলভীবাজার মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুল আজিজ জানান পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সাতজনকে সিএনজিসহ গ্রেফতার করে। এদের মধ্যে তিনজনের বাড়ি সদর উপজেলার দুঘর গ্রামে ও বাকী চারজনের বাড়ি হবিগঞ্জের নবিগঞ্জ এলাকার লামরু গ্রামে। গ্রেফতারকৃতরা হলেন-আব্দুল মতিন (২৯), সোহেল মিয়া (২৭), আব্দুল কালাম (২৮), টিটু মিয়া (২৫), শাহজাহান (২৪), অয়েছ মিয়া (২২) ও ফিরোজ মিয়া (২৫)। তাদের বাড়ি মৌলভীবাজার ও হবিগঞ্জ জেলার বিভিন্ন এলাকায়।  

 à¦®à§Œà¦²à¦­à§€à¦¬à¦¾à¦œà¦¾à¦° মডেল থানা পুলিশ সিএনজি চালক হত্যার সাথে জড়িত সাত ছিনতাইকারীকে গ্রেফতার করেছে। ১৪ জানুয়ারী মঙ্গলবার রাতে সদর উপজেলার বাহারমর্দান গ্রাম থেকে একটি ছিনতাইকৃত সিএনজি অটোরিক্সাসহ ৭ ছিনতাইকারীকে আটক করে। 

পুলিশ জানায়, গত ১২ জানুয়ারি ধৃত টিটু, ওয়েছ ও সুবীর তিনজন মিলে হবিগঞ্জের বাহুবলের মীরপুর এলাকা থেকে চালকসহ একটি সিএনজি অটোরিক্সা ছিনতাই করে। এরপর ছিনতাইকারীরা কামাইছড়া এলাকায় সিএনজি চালক সিরাজ মিয়া কে হত্যা করে সিএনজি নিয়ে পালিয়ে যায়।

পরে মৌলভীবাজার সদর উপজেলার বাহারমর্দান গ্রামে অটোরিক্সাটি বিক্রির জন্য নিয়ে আসে। মৌলভীবাজার মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুল আজিজ জানান পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সাতজনকে সিএনজিসহ গ্রেফতার করে। এদের মধ্যে তিনজনের বাড়ি সদর উপজেলার দুঘর গ্রামে ও বাকী চারজনের বাড়ি হবিগঞ্জের নবিগঞ্জ এলাকার লামরু গ্রামে। গ্রেফতারকৃতরা হলেন-আব্দুল মতিন (২৯), সোহেল মিয়া (২৭), আব্দুল কালাম (২৮), টিটু মিয়া (২৫), শাহজাহান (২৪), অয়েছ মিয়া (২২) ও ফিরোজ মিয়া (২৫)। তাদের বাড়ি মৌলভীবাজার ও হবিগঞ্জ জেলার বিভিন্ন এলাকায়।  

 à¦¸à§à¦Ÿà¦¾à¦« রিপোর্টার॥

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •