অসহায় রোগাক্রান্ত শোভন মালাকার বাচতে চায়

August 11, 2021, এই সংবাদটি ১০৮ বার পঠিত

প্রনীত রঞ্জন দেবনাথ: কমলগঞ্জ উপজেলার মুন্সীবাজার ইউনিয়নের রামপুর গ্রামের সজল মালাকারের ১৭ বছর বয়সী ছেলে শোভন মালাকার। সে দীর্ঘ ১ বছর যাবত পেটের ব্যাথায় ভুগছে। পরে মেডিকেল টেস্টে তার পেটের ভিতরে ১৫-১৬ টি পাথর ধরা পড়ে। দ্রæত চিকিৎসা না করলে তাকে বাচানো যাবে না বলে জানিয়েছেন চিকিৎসক।
মঙ্গলবার ১০ আগস্ট বিকাল ৩ টায় তার বাড়িতে গেলে জানা যায়, মাস খানেক পূর্বে মেডিকেল টেস্টে শোভন মালাকারের পেটের ভিতরে ১৫-১৬ টি পাথর ধরা পড়ে। সেই সময় থেকে প্রচন্ড ব্যাথায় ভোগছে। এ অবস্থায় তার চিকিৎসার ব্যয় বহন করতে পারছে না এই অসহায় পরিবারটি। ডাক্তারের পরামর্শ অনুযায়ী ঢাকায় নিয়ে পাথর অপসারণ করতে হবে।
বাবা সজল মালাকার দিনমজুরির কাজ করতেন, কিন্তু দীর্ঘদিন যাবত বাবার মেরুদন্ডের সমস্যার কারনে কোন কিছু করতে পারছেন না। তাছাড়া মা অর্চনা মালাকার অন্যের ঘরে কাজ করে কোনরকম সংসার চালাচ্ছন। কিন্তু একমাত্র ছেলের ব্যয়বহুল চিকিৎসা চালানো তার পরিবারের পক্ষে অসম্ভব। তাই সমাজের বিত্তশালী মানুষের কাছে তার একমাত্র ছেলের চিকিৎসার জন্য সাহায্য চেয়েছেন। তাছাড়া তিনি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সুদৃষ্টি কামনা করেছেন। সহযোগীতার জন্য পারসনাল বিকাশ নাম্বার -০১৬৩০৬৭৩১৪১ (শোভনের কাকা)।

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •