কুলাউড়ায় জুয়া চক্রের হোতা যুবলীগ নেতা সুমন জেল হাজতে

September 25, 2021, এই সংবাদটি ১১৬ বার পঠিত

কুলাউড়া প্রতিনিধি॥ কুলাউড়ায় জুয়ার আসর বসানোর চক্রের প্রধান হোতা ও একাধিক মামলার অভিযুক্ত আসামী যুবলীগ নেতা সুমন আহমদকে গ্রেপ্তার করে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে পুলিশ।
২৩ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার মৌলভীবাজার আদালতের মাধ্যমে তাকে জেল হাজতে প্রেরণ করা হয়। যুবলীগ নেতা সুমন কুলাউড়া পৌর শহরের চাতলগাঁও গ্রামের বাসিন্দা মৃত আব্দুল লতিফের ছেলে। এদিকে সুমনের বিরুদ্ধে নারী, শিশু, চাঁদাবাজি ও মাদকসহ থানায় মোট ১৩টি মামলা রয়েছে বলে জানা গেছে।
পুলিশ ও মামলার এজাহার সূত্রে জানা যায়, বুধবার উপজেলার জয়চন্ডী ইউনিয়নের দিলদারপুর চা বাগানে জুয়ার আসর বসানো ও চাঁদা আদায়ের জন্য পৌর যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক সুমন আহমদ বিরোধ সৃষ্টি করে স্থানীয় রঙ্গিরকুল গ্রামের জসিম মিয়ার সাথে। এসময় সে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে ওইস্থানে জসিম মিয়া গংদের মারপিট করার জন্য অবস্থান করে। ঘটনার ৪/৫ দিন পূর্বে সুমন আহমদ দিলদারপুর চা বাগানে জুয়া খেলতে গিয়ে জসিম মিয়া গংদের সাথে মারামারি করে। খবর পেয়ে কুলাউড়া থানার এ এস আই মোঃ আবু আহম্মেদ সুজন ঘটনাস্থলে গিয়ে সুমন আহমদকে গ্রেফতার করেন। এর আগে গত ২০১৯ সালে কুলাউড়ার মুরইছড়া বিজিবি ক্যাম্পের নায়েব সুবেদার মোঃ আকরামুজ্জামান সুমনসহ তার সহযোগী ৪ জনের বিরুদ্ধে ভারতীয় তৈরী মদ এবং ভারতীয় মুদ্রা নিজ হেফাজতে রাখার অপরাধে বিশেষ ক্ষমতা আইনে কুলাউড়া থানায় মামলা (নং-২৩৩/১৯ইং) দায়ের করেন।
এ ব্যাপারে কুলাউড়া উপজেলা যুবলীগের সাধারন সম্পাদক মইনুল ইসলাম সবুজ শনিবার বিকেলে মুঠোফোনে বলেন, বিষয়টি আমরা জেনেছি। জেলা যুবলীগের নেতৃবৃন্দের সাথে কথা বলে সুমনের বিরুদ্ধে দলীয় সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেয়া হবে।
কুলাউড়া থানার এ এস আই আবু আহম্মেদ সুজন বলেন, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে সুমনকে ঘটনাস্থল থেকে গ্রেফতার করি। তাকে গ্রেফতার না করলে ঘটনাস্থলে খুন-খারাপি সংগঠিত হওয়ার আশঙ্কা ছিল।
কুলাউড়া থানার ওসি (তদন্ত) মোঃ আমিনুল ইসলাম শনিবার বিকেলে মুঠোফোনে বলেন, আসামীকে ১৫১ ধারায় বিজ্ঞ আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। তাঁর বিরুদ্ধে বিভিন্ন অপরাধে কুলাউড়া থানায় ১৩টি মামলা রয়েছে।

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •