কুলাউড়ায় ভারি বর্ষণ ও পাহাড়ী ঢলে অকাল বন্যা

May 19, 2016, এই সংবাদটি ২৫৫ বার পঠিত

 

Kulaura-18
এম মছব্বির আলী :
মাত্র ১২ ঘন্টার ভারি বর্ষণ ও পাহাড়ী ঢলে কুলাউড়ায় মাত্র একমাসের ব্যবধানে ২য় বার অকাল বন্যা দেখা দিয়েছে। বিভিন্ন নদ নদীর প্রতিরক্ষা বাঁধে ভাঙ্গন দেখা দিয়েছে।

Kulaura-18-(3)

মঙ্গলবার সন্ধ্যা ৬টা থেকে ১৮মে বুধবার ভোর ৫টা পর্যন্ত ভারী বর্ষণ হয়েছে কুলাউড়া উপজেলায়। ভারী বর্ষণ আর পাহাড়ী ঢলে কুলাউড়া উপজেলার প্রতিটি ইউনিয়নে রাস্তা ঘাট তলিয়ে গেছে বানের পানিতে। মানুষের পুকুরের মাছ ভাসিয়ে নিয়ে গেছে। এমনকি কুলাউড়া শহরের প্রধান সড়কে ২ থেকে ৩ ফুট পানি ছিলো পুরো রাত। সকালে বৃষ্টিপাত থামায় পানি নেমেছে। সকল মানুষেল একই কথা এমন বৃষ্টি নিকট অতীতে আর হয়নি।

Kulaura-18-(2)

ভারী বর্ষণের ফলে কুলাউড়া উপজেলার গোগালী ও ফানাই নদীর প্রতিরক্ষা বাঁধে একাধিক স্থানে ভাঙ্গনের সৃষ্টি হয়েছে। বন্যার পানিতে মানুষের দুর্ভোগ ছিলো অবর্নণীয়। এক ভারী বর্ষণ সেই সাথে বিদ্যুৎহীন মানুষেল রাত কেটেছে আতঙ্কে। সকালের আলোর সাথে সাথে কেটেছে বানের জল ঘরবাড়ী ভাসিয়ে নিয়ে যাওয়ার আশঙ্কা। উপজেলার রাউৎগাঁও ইউনিয়ন দিয়ে বয়ে যাওয়া ফানাই নদী ও জয়চন্ডী ইউনিয়ন বিয়ে বয়ে চলা গোগালী নদীর প্রতিরক্ষা বাঁধ ভেঙেছে একাধিক স্থানে। ফলে এ রাউৎগাঁও ইউনিয়নের কবিরাজী, ভবানীপুর, মুকুন্দপুর গ্রাম জয়চন্ডী ইউনিয়নের লামাপাড়া, কামারকান্দি, দানাপুর, কুলাউড়া সদর ইউনিয়নের শঙ্করপুর, জনতাবাজার ও প্রতাবী গ্রামে মানুষের ঘরে বানের পানি প্রবেশ করে।

Kulaura-18-(1)

কুলাউড়া উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মোঃ শিমুল আহমদ জানান, অধিক বৃষ্টিপাত ও উজানের ঢলে কুলাউড়া কয়েকটি ইউনিয়নের রাস্তাঘাট ডুবে যায় এবং বিভিন্ন এলাকা প্লাবিত হয়েছে। আমরা উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে ক্ষয়ক্ষতি নিরূপন করছি।

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •