পাঁচ মাস বন্ধ ধাকার পর মাধবকুণ্ড পর্যটন কেন্দ্র খুলেছে, ফিরেছে প্রাণচাঞ্চল্য

August 21, 2021, এই সংবাদটি ৮৮ বার পঠিত

আব্দুর রব॥ পর্যটকদের জন্য অবশেষে খুলে দেওয়া হল মাধবকুন্ড ইকোপার্ক। ২০ আগষ্ট শুক্রবার দুপুরে বনবিভাগ এ বিনোদন কেন্দ্রটির প্রধান ফটক খুলে দিয়েছে। করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে ১ এপ্রিল দেশের সকল পর্যটন স্পটের সাথে মাধবকুন্ডও বন্ধ করে দেয় বন অধিদপ্তর।
প্রায় ৫ মাস বন্ধ থাকার পর শর্তসাপেক্ষে বৃহস্পতিবার দেশের বিভিন্ন পর্যটন কেন্দ্র খুলে দেওয়া হলেও খুলেনি মাধবকুণ্ড ইকোপার্ক। বৃহস্পতিবার বাংলাদেশ টুডের অনলাইন সংস্করণে ‘খুলেনি মাধবকুন্ড ইকোপার্ক, হতাশ হয়ে ফিরে গেলেন সহস্রাধিক পর্যটক’ শিরোনামে একটি সংবাদ প্রকাশিত হলে বিষয়টি বন মন্ত্রণালয়ের নজরে আসে। মন্ত্রণালয়ের নির্দেশে বন অধিদপ্তর দেশের অন্যতম এ বিনোদন কেন্দ্রটির দর্শনার্থী প্রবেশের নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করেছে। বিভাগীয় বন কর্মকর্তা শুক্রবার সকালে দেশের অন্যতম পর্যটন কেন্দ্র মাধবকুন্ড ইকোপার্ক দর্শনার্থীদের জন্য খুলে দিতে স্থানীয় বন কর্মকর্তাকে নির্দেশ দেন।
জানা গেছে, করোনাভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধের লক্ষ্যে বন অধিদপ্তরের নিয়ন্ত্রণাধীন দেশের সকল পর্যটন কেন্দ্রের মতো ১ এপ্রিল মাধবকুন্ড জলপ্রপাতে দর্শনার্থী প্রবেশ বন্ধ করে দেওয়া হয়। দেশব্যাপী লকডাউন প্রত্যাহারের পর মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের ১২ আগস্টের সিদ্ধান্তে শর্তসাপেক্ষে ১৯ আগস্ট দেশের বিভিন্ন পর্যটন ও বিনোদনকেন্দ্র খুলে দেওয়ার নির্দেশনা প্রদান করা হয়। এই ঘোষণা শুনেই বৃহস্পতিবার বিভিন্ন স্থান থেকে নানা বয়সী ভ্রমান পিপাসু ও প্রকৃতিপ্রেমী মাধবকুণ্ড জলপ্রপাত এলাকায় ভিড় করেন। সকাল থেকে তারা ইকোপার্কের ফটকে জড়ো হতে থাকেন। কিন্তু ফটক বন্ধ থাকায় নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা পুলিশ ও বন বিভাগের কর্মকর্তারা পর্যটকদের খোলার নির্দেশনা না থাকার কথা বলে আগত পর্যটকদের ফিরিয়ে দেন। পরে কেউ আশপাশের চা-বাগানে ঘুরে সময় কাটিয়েছেন। কেউ কেউ ঝুঁকি নিয়ে পাহাড়ি মাধবছড়া, চা-বাগান ও জঙ্গলের ভেতর দিয়ে মাধবকুণ্ডে ঢুকে কিছু সময় কাটিয়েছেন। আবার কেউ হতাশা নিয়ে ফিরে গেছেন।
এদিকে বনমন্ত্রণালয়ের নির্দেশে বন অধিদপ্তর শুক্রবার দুপুরে মাধবকুন্ড ইকোপার্কের প্রধান ফটক খুলে দিলে আগত দূরদূরান্তের ভ্রমনপিপাসু পর্যটক-দর্শনার্থীর আনাগুনায় মূখর হয়ে উঠে পর্যটন এলাকাটি। প্রাণচাঞ্চল্য ফিরেছে মাধবকুন্ডের পর্যটক নির্ভর ব্যবসায়ীদের। ফটকে দাঁড়িয়ে আগত পর্যটকদের বরণ করে পর্যটন পুলিশ, বনবিভাগ, স্থানীয় পর্যটক সহায়ক ও উন্নয়ন কমিটির নেতৃবৃন্দসহ স্থানীয় ব্যবসায়ীরা।
রেঞ্জ কর্মকর্তা শেখর রঞ্জন দাস জানান, মাধবকুন্ড ইকোপার্কে দর্শনার্থী প্রবেশের নিষেধাজ্ঞা প্রত্যাহার করা হয়েছে। শুক্রবার বিভাগীয় বন কর্মকর্তা এসএম সাজ্জাদ হোসেন ইকোপার্কের প্রধান ফটক খুলে দিতে নির্দেশ দিয়েছেন। দুপুরে তিনি ইকোপার্কের প্রধান ফটক খুলে দিয়েছেন। পর্যটকদের নিরাপত্তায় সেখানে পর্যটন পুলিশ ও বন বিভাগের বিট কর্মকর্তাসহ স্টাফরা রয়েছেন।’

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •