বাছিরপুরের লটকন জুড়ী উপজেলার চাহিদা মিটিয়ে সারাদেশে বানিজ্যিকভাবে বিক্রয়ের সম্ভাবনা

May 6, 2016, এই সংবাদটি ৩১৬ বার পঠিত

জুড়ী প্রতিনিধি॥ জুড়ী উপজেলার পশ্চিম জুড়ী ইউনিয়নের বাছিরপুর ও চালবন গ্রামের মানুষ চাষবাস করে বাণিজ্যিকভাবে উৎপাদন করছে লটকন।
৫ মে বৃহস্পতিবার বাছিরপুর ও চালবন গ্রামে গিয়ে দেখা যায় এবার প্রতিটি বাড়ীতে লটকন (বুবি’র) বাম্পার ফলন হয়েছে। কৃষকদের সাথে আলাপকালে কৃষকরা বলেন ২০১৫ইং সনে লটকন (বুবি) খুব একটা ফলন হয় নাই। তবে এবার সময় মত বৃষ্টি পাওয়ায় লটকন খুব ভালো হয়েছে। মধ্যে বাছিপুরের মৃত হাজী মন্তুজ মিয়া পুত্র এম এ সালামের বাগানে প্রায় ১০০ টি লটকন গাছে ফলন ভালো হয়েছে এবার তিনি আশা করছেন ২০ থেকে ৩০ হাজার টাকা আয় করবেন।

Kulaura-Biddut কৃষক কমর উদ্দিন, আব্দুর রব, রিংকু রঞ্জন দাস, অতিকা অধিকারীর সাথে আলাপকরে জানা যায়, শিলাবৃষ্টির কারনে কিছুটা ক্ষতি হলেও এবার লটকন (বুবি) খুব ভালো হয়েছে। সময় মতো লটকুন (বুবি) পাকলে অন্যান্য ফসলের ছেয়ে বিক্রয় ভালো হবে। লটকনের বেশ কয়েকটি নাম রয়েছে; যেমন- হাড়ফাটা, ডুবি, কানাইজু, লটকা, লটকাউ, জুড়ী ও সিলেট বিভাগে লটকন (বুবি) নামে পরিচিত। মূলত গ্রীষ্মের তাপদাহে বৃষ্টির পরশের এই ফলটি ভালো হয়। ফলটি আঙুরের মতো থোকায় থোকায় ধরে। বসন্তে ফুল আসে আর ফল পাকতে পাকতে বর্ষা। কাচাঁ অবস্থায় সবুজ, পাকলে হলদে বর্ণ ধারণ করে। ডুমুরের মতো লটকন (বুবি) গাছের ডালের বাকলে ফেটে লম্বা বৃন্তে গুছাকারে ধরে।

LOTKON-PIC-05 একেক গুছায় ভালো ফল আসলে ৩০ থেকে ৮০টি পর্যন্ত ফল ধরে। লটকন গাছে নিচ থেকে মাথা পর্যন্ত ফল ধরে। একটি লটকন (বুবি) খোসার ভেতরে তিন-চারটি রসালো কোষ থাকে। লটকন (বুবি) বাড়ির আঙিনায় বা বড় বড় গাছের নিচে অধিক ছায়াযুক্ত জায়গায় খুব ভালো হয়। এটি খুবই সম্ভাবনাময় একটি দেশীয় বৃক্ষ। জুড়ী উপজেলার কৃষকরা মনে করেন, অন্যান্য ফলনের চেয়ে লটকন চাষে লাভও বেশী। বাজারে লটকন (বুবি)র খুচরা মূল্য ৫০ থেকে ১০০ টাকা কেজি। এক কেজিতে আকারভেদে প্রায় ১০০টির মতো লটকন হয়। বাছিরপুর, চালবন গ্রামের প্রতিটি বাড়ীতে লটকন (বুবি) পাওয়া যায়।

LOTKON-PIC-03 পুষ্টিবিজ্ঞানীদের গবেষণা মতে লটকনের পুষ্টিগুণ প্রচুর। লটকনে পুষ্টি ও ভেষজ গুন: টক-মিষ্টি স্বাদযুক্ত লটকন (বুবি) খাদ্যমানের দিক দিয়ে সমৃদ্ধ। প্রতি ১০০ গ্রাম লটকনে খাদ্যশক্তি রয়েছে ৯১ কিলোক্যালরি, আমলকীর প্রায় পাঁচ গুন। এ ছাড়া আমিষ রয়েছে ১ দশমিক ৪২ গ্রাম, ¯েœহ শূন্য দশমিক ৪৫ গ্রাম, খনিজ পদ্রার্থ শূন্য দশমিক ৯ গ্রাম, ভিটামিন বি-১ শূন্য দশমিক ১৯ মিলিগ্রাম, লৌহ শূন্য দশমিক ৪৫ মিলিগ্রামসহ রয়েছে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন সি। আমাদের দেহের ভিটামিন সি-এর চাহিদা পূরণে দু-চাটি লটকন (বুবি) যথেষ্ট।

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •