ফলো আপ : কুলাউড়ায় চা-পাতা চুরি মামলায় ফ্যাক্টরী বাবু গ্রেফতার-ভাগের টাকা উদ্ধার

September 8, 2013, এই সংবাদটি ২৯৫ বার পঠিত

কুলাউড়ার লুয়াইউনি চা-বাগানের বিপুল পরিমান চা-পাতা চুরি মামলায় পুলিশ ফ্যাক্টরী বাবু আব্দুল হককে গ্রেফতার করেছে। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই নাজমুল জানান গত ৫ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার রাতে তার নেতৃত্বে পুলিশ বাগান এলাকায় এক অভিযান চালিয়ে ফ্যাক্টরী বাবু আব্দুল হককে গ্রেফতার করে। পরে তার স্বীকারোক্তিনুযায়ী কমলগঞ্জ থানার দিদ্ধেশ্বরপুর তার গ্রামের বাড়ী থেকে চোরাই চা-পাতা বিক্রির টাকার তার অংশের দেড় লাখ টাকা উদ্ধার করা হয়। গ্রেফতারকৃত আব্দুল হককে ৬ সেপ্টেম্বর শুক্রবার মৌলভীবাজার কোর্টে সোপর্দ করা হয়েছে। উল্লেখ্য, ঢাকার হামিম গ্রুপের অন্যতম প্রতিষ্ঠান কুলাউড়া উপজেলার লোহাইনি চা বাগান থেকে ৫৩ লাখ টাকার (১৪ হাজার ২৭৩ কেজি) চা পাতা আত্মসাতের অভিযোগে বাগানের প্রশাসনিক র্কমকর্তা রেজাউল করিম ও স্টোর ক্লার্ক সুদীপ চক্রর্বতীর কুলাউড়া থানায় পৃথক দায়ের করা দু’টি মামলায় ইতিপূর্বে গ্রেফতারকৃত বাগানের ৩ ম্যানেজারের মধ্যে বি,বাড়ীয়া জেলার সরাইল থানার গোগর নিবাসী মাহফুজুল ইসলামের পুত্র ম্যানেজার শফিকুল ইসলাম এবং বরগুনা জেলার বেতাগী থানার বকুলতলা নিবাসী নুরুল হকের পুত্র সহকারী ম্যানেজার মেহেদী হাসানসহ দু’জন তিন দিনের পুলিশ রিমান্ডে রয়েছেন।
কুলাউড়ার লুয়াইউনি চা-বাগানের বিপুল পরিমান চা-পাতা চুরি মামলায় পুলিশ ফ্যাক্টরী বাবু আব্দুল হককে গ্রেফতার করেছে। মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই নাজমুল জানান গত ৫ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার রাতে তার নেতৃত্বে পুলিশ বাগান এলাকায় এক অভিযান চালিয়ে ফ্যাক্টরী বাবু আব্দুল হককে গ্রেফতার করে। পরে তার স্বীকারোক্তিনুযায়ী কমলগঞ্জ থানার দিদ্ধেশ্বরপুর তার গ্রামের বাড়ী থেকে চোরাই চা-পাতা বিক্রির টাকার তার অংশের দেড় লাখ টাকা উদ্ধার করা হয়। গ্রেফতারকৃত আব্দুল হককে ৬ সেপ্টেম্বর শুক্রবার মৌলভীবাজার কোর্টে সোপর্দ করা হয়েছে। উল্লেখ্য, ঢাকার হামিম গ্রুপের অন্যতম প্রতিষ্ঠান কুলাউড়া উপজেলার লোহাইনি চা বাগান থেকে ৫৩ লাখ টাকার (১৪ হাজার ২৭৩ কেজি) চা পাতা আত্মসাতের অভিযোগে বাগানের প্রশাসনিক র্কমকর্তা রেজাউল করিম ও স্টোর ক্লার্ক সুদীপ চক্রর্বতীর কুলাউড়া থানায় পৃথক দায়ের করা দু’টি মামলায় ইতিপূর্বে গ্রেফতারকৃত বাগানের ৩ ম্যানেজারের মধ্যে বি,বাড়ীয়া জেলার সরাইল থানার গোগর নিবাসী মাহফুজুল ইসলামের পুত্র ম্যানেজার শফিকুল ইসলাম এবং বরগুনা জেলার বেতাগী থানার বকুলতলা নিবাসী নুরুল হকের পুত্র সহকারী ম্যানেজার মেহেদী হাসানসহ দু’জন তিন দিনের পুলিশ রিমান্ডে রয়েছেন। কুলাউড়া অফিস॥

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •