যক্ষা ঝুঁকিতে শ্রীমঙ্গল ও কমলগঞ্জ

December 22, 2013, এই সংবাদটি ২০৮ বার পঠিত

সীমান্ত এলাকায় হওয়ায় যক্ষা ঝুঁকিতে রয়েছে শ্রীমঙ্গল ও কমলগঞ্জ উপজেলা। ২২ ডিসেম্বর রবিবার বেলা ১২টায় যক্ষা বিষয়ে সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে প্রাথমিক শিক্ষকদের নিয়ে এডভোকেসি সভায় এ কথা বলেন বক্তারা। শ্রীমঙ্গল কৃষি অফিসের মিলনায়তনে আয়োজিত এ এডভোকেসি সভায় সভাপতিত্ব করেন নাটাব শ্রীমঙ্গলের সভাপতি অধ্যাপক সাইয়্যিদ মুজিবুর রহমান। নাটাব শ্রীমঙ্গলের সাধারণ সম্পাদক জহর তরফদারের পরিচালনায় সভায় অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন শ্রীমঙ্গল প্রেসক্লাব সভাপতি গোপাল দেব চৌধুরী, সিনিয়র মেডিকেল অফিসার বিনেন্দু ভৌমিক, সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম। বক্তারা আরো বলেন, এর সচেতনতায় বিশাল ভুমিকা রাখতে পারেন প্রাথমিক স্কুলের শিক্ষকরা। তারা প্রাথমিক শিক্ষকদের একমন্ত্রে দীক্ষিত করেন, “একনাগারে তিন সপ্তাহের বেশি কাঁশি হলে নিকটস্থ সরকারী হাসপাতালে যাওয়ার পরামশ্য দিতে হবে ছাত্রদের। আর ছাত্ররা তাদের বাড়িঘরে তা জানাবে। এতে যক্ষা রোধে সহায়ক হবে।
সীমান্ত এলাকায় হওয়ায় যক্ষা ঝুঁকিতে রয়েছে শ্রীমঙ্গল ও কমলগঞ্জ উপজেলা। ২২ ডিসেম্বর রবিবার বেলা ১২টায় যক্ষা বিষয়ে সচেতনতা সৃষ্টির লক্ষ্যে প্রাথমিক শিক্ষকদের নিয়ে এডভোকেসি সভায় এ কথা বলেন বক্তারা। শ্রীমঙ্গল কৃষি অফিসের মিলনায়তনে আয়োজিত এ এডভোকেসি সভায় সভাপতিত্ব করেন নাটাব শ্রীমঙ্গলের সভাপতি অধ্যাপক সাইয়্যিদ মুজিবুর রহমান। নাটাব শ্রীমঙ্গলের সাধারণ সম্পাদক জহর তরফদারের পরিচালনায় সভায় অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন শ্রীমঙ্গল প্রেসক্লাব সভাপতি গোপাল দেব চৌধুরী, সিনিয়র মেডিকেল অফিসার বিনেন্দু ভৌমিক, সহকারী শিক্ষা কর্মকর্তা সাইফুল ইসলাম। বক্তারা আরো বলেন, এর সচেতনতায় বিশাল ভুমিকা রাখতে পারেন প্রাথমিক স্কুলের শিক্ষকরা। তারা প্রাথমিক শিক্ষকদের একমন্ত্রে দীক্ষিত করেন, “একনাগারে তিন সপ্তাহের বেশি কাঁশি হলে নিকটস্থ সরকারী হাসপাতালে যাওয়ার পরামশ্য দিতে হবে ছাত্রদের। আর ছাত্ররা তাদের বাড়িঘরে তা জানাবে। এতে যক্ষা রোধে সহায়ক হবে। শ্রীমঙ্গল প্রতিনিধি॥

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •