সেই ভারতীয় নারীর করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা সংগ্রহ

June 17, 2021, এই সংবাদটি ১৫০ বার পঠিত

স্টাফ রিপোর্টার॥  মৌলভীবাজারে আটক অবৈধ অনুপ্রবেশকারী ভারতীয় নারীর ৩দিন পর করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা সংগ্রহ করা হয়। বৃহস্পতিবার ১৭ জুন দূপুরে জেলা কারাগার থেকে একটি বেসরকারি এম্বুলেন্সে করে করোনা পরীক্ষার জন্য মৌলভীবাজার ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়।

জেলা কারাগারের জেল সুপার মোঃ আনোয়ারুজ্জামান জানান, ১৫ জুন বিকালে ভারতীয় নারী সমজা বিবি (৩১) কে আদালত মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়। এর পর কারাগারের ভেতর হাসপাতালের আইসোলেশনে ওই নারীকে রাখা হয়। আজ বৃহস্পতিবার জেলা সিভিল সার্জনের সাথে কথা বলে করোনা পরীক্ষার জন্য ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট সদর হাসপাতালে পাঠিয়ে নমুনা দেয়া হয়।

এ বিষয়ে জেলা সিভিল সার্জন ডাঃ চৌধুরী জালাল উদ্দিন মুর্শেদ জানান, কারাগার থেকে পাঠানো ভারতীয় নারীর করোনা পরীক্ষার জন্য নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। রিপোর্ট দু’ এক দিনের মধ্যে রিপোর্ট পাওয়া যাবে।

উলেখ্য শ্রীমঙ্গল উপজেলার সিন্দুরখান ইউনিয়নের কুঞ্জবন এলাকায় অবৈধ অনুপ্রবেশের দায়ে সমজা বিবি (৩১) নামের ভারতীয় নারীকে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশ (বিজিবি) ১৪ জুন বিকেল ৩টার দিকে আটক করে। আটকের পর বিজিবি টহল দলের কাছে ওই নারী স্বীকার করে জানায়, তার স্বামীসহ সীমান্ত পাড়ি দিয়ে বাংলাদেশে অবৈধ প্রবেশ করেছে। পরে ওইদিন রাত ১১টার দিকে শ্রীমঙ্গল থানা পুলিশের কাছে তাঁকে হস্তান্তর করে বিজিবি।

শ্রীমঙ্গল থানার ওসি (তদন্ত) হুমায়ুন কবির জানান, আটক সমজা বিবি ভারতের ধলাইপিন জেলার কমলপুর মহকুমার গঙ্গানগর গ্রামের মোঃ আব্দুস সালামের স্ত্রী বলে নিশ্চিত করেছেন। সীমান্ত অবৈধভাবে অনুপ্রবেশের দায়ে আটক নারীর বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। পরে তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়। এ বিষয়ে তদন্ত চলছে।

বিজিবি ব্যাটালিয়ন ৫৫-এর সহকারী পরিচালক নাসির উদ্দীন জানান, বিজিবি টহল দলের কাছে ওই ভারতীয় নারীর সীমান্ত অনুপ্রেবেশের বিষয়ে তথ্য আসে। টহলদলের সদস্যরা সিন্দুরখান ইউনিয়নের কুঞ্জবন এলাকায় ওই নারীকে দেখতে পেয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করলে তিনি সীমান্ত অনুপ্রবেশের বিষয়টি স্বীকার করেন। পরে  তাকে আটক করে শ্রীমঙ্গল পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা।

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •