বড়লেখায় খেলাফত মজলিস নেতা শ্রীঘরে

September 3, 2013,

বিদেশে লোক পাঠানোর প্রতারনা মামলায় ছয় বছরের সশ্রম কারাদন্ডে দন্ডিত খেলাফত মজলিসের নেতা ও বিগত উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী আসামী সাইফুল ইসলাম ইয়াহিয়ার (৪০) ঠিকানা এখন শ্রীঘরে। ২ সেপ্টেম্বর বড়লেখা সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে আতœসমর্পন করে জামিন চাইলে বিজ্ঞ আদালত তার জামিন না মঞ্জুর করে কারাগারে প্রেরনের নিদের্শ প্রদান করেন । আদালত সুত্রে জানা গেছে, বড়লেখা উপজেলার খেলাফত মজলিসের নেতা ও বিগত উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ভাইস চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী সাইফুল ইসলাম ইয়াহিয়ার ২০০৮ সালে পৌর শহরের বারইগ্রামে হাজী মনির উদ্দিনের ছেলে আব্দুর রহমানকে কানাডা পাঠানোর জন্য ১৪লক্ষ টাকার চুক্তি করেন। হাজী মনির উদ্দিন চুক্তি মোতাবেক সাইফুল ইসলাম ইয়াহিয়ার হাতে প্রথম কিস্তির সাত লক্ষ টাকা তুলে দিলেও টালবাহনা শুরু করেন সাইফুল ইসলাম ইয়াহিয়া। এ ঘটনায় হাজী মনির উদ্দিন সাইফুল ইসলাম ইয়াহিয়াকে আসামী করে বড়লেখা সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে প্রতারনা মামলা করেন(মামলা নং-৩০৬/২০০৯)। মামলার প্রেক্ষিতে সাইফুল ইসলাম ইয়াহিয়ার অনুপস্থিতিতে বড়লেখা সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতের বিজ্ঞ বিচারক প্রতারনা মামলায় তাকে ছয় বছরের সশ্রম কারাদন্ডে দন্ডিত করেন।
বিদেশে লোক পাঠানোর প্রতারনা মামলায় ছয় বছরের সশ্রম কারাদন্ডে দন্ডিত খেলাফত মজলিসের নেতা ও বিগত উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী আসামী সাইফুল ইসলাম ইয়াহিয়ার (৪০) ঠিকানা এখন শ্রীঘরে। ২ সেপ্টেম্বর বড়লেখা সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে আতœসমর্পন করে জামিন চাইলে বিজ্ঞ আদালত তার জামিন না মঞ্জুর করে কারাগারে প্রেরনের নিদের্শ প্রদান করেন । আদালত সুত্রে জানা গেছে, বড়লেখা উপজেলার খেলাফত মজলিসের নেতা ও বিগত উপজেলা পরিষদ নির্বাচনে ভাইস চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী সাইফুল ইসলাম ইয়াহিয়ার ২০০৮ সালে পৌর শহরের বারইগ্রামে হাজী মনির উদ্দিনের ছেলে আব্দুর রহমানকে কানাডা পাঠানোর জন্য ১৪লক্ষ টাকার চুক্তি করেন। হাজী মনির উদ্দিন চুক্তি মোতাবেক সাইফুল ইসলাম ইয়াহিয়ার হাতে প্রথম কিস্তির সাত লক্ষ টাকা তুলে দিলেও টালবাহনা শুরু করেন সাইফুল ইসলাম ইয়াহিয়া। এ ঘটনায় হাজী মনির উদ্দিন সাইফুল ইসলাম ইয়াহিয়াকে আসামী করে বড়লেখা সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতে প্রতারনা মামলা করেন(মামলা নং-৩০৬/২০০৯)। মামলার প্রেক্ষিতে সাইফুল ইসলাম ইয়াহিয়ার অনুপস্থিতিতে বড়লেখা সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আদালতের বিজ্ঞ বিচারক প্রতারনা মামলায় তাকে ছয় বছরের সশ্রম কারাদন্ডে দন্ডিত করেন। স্টাফ রিপোর্টার॥

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •