মৌলভীবাজারে সরকারী জমিতে পোল্ট্রি হ্যাচারী বন্ধের দাবীতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত

November 13, 2013, এই সংবাদটি ৩৯০ বার পঠিত

মৌলভীবাজার মৌলভীবাজারে সরকারী রাস্তা, পানি উন্নয়ন বোর্ডের ওয়াপদা বাঁধ ও সরকারী খাস ভুমিতে ব্যাক্তি মালিকানাধীন পোল্ট্রি হ্যাচারী বন্ধের দাবীতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত। গত ১১ নভেম্বর সোমবার দুপুর সাড়ে ১১টায় মৌলভীবাজার প্রেসক্লাবের সামনে অনুষ্টিত হয়। মৌলভীবাজার জেলার কমলগঞ্জ উপজেলার চৈত্রঘাট, প্রতাপী, জগন্নাথপুর, বড়চেগ ও ছয়কুট গ্রামবাসী এ মানববন্ধনে অংশ নেয়। মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, মোঃ চেরাগ মিয়া, বিজয় ভৌমিক, রইছ মিয়া, মশাহিদ মিয়া, আব্দুল বারী, লেছু মিয়া, জিয়াউর রহমান প্রমূখ। সাবেক ইউপি সদস্য মোঃ চেরাগ মিয়াসহ এলাকাবাসী বলেন, মৌলভীবাজার জেলার কমলগঞ্জ উপজেলার ১নং রহিমপুর ইউনিয়নের চৈত্রঘাট ও প্রতাপি গ্রামের পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া ধলাই নদীর তীরে সরকারী রাস্তা, সরকারী খাস ভুমি দখল করে জনবসতি এলাকায় পরিবেশ দূষণকারী পোল্ট্রি হ্যাচারী তৈরী করছে। তারা বলেন, জনসাধারণের চলাচলের ১৮ থেকে ২৫ প্রস্থ রাস্তা, পানি উন্নয়ন বোর্ডের বাঁধ ও সরকারী খাস ভুমি দখল করে প্রভাবশালীমহল পোল্ট্রি হ্যাচারী করতেছে। তারা সাংবাদিকদের জানান, গত অক্টোবর মাসের ১৩ জেলা প্রশাসক বরাবরে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। অভিযোগ দেয়ার পরও প্রশাসনের পক্ষ থেকে কোন প্রকার প্রদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে না। এমনকি প্রশাসন জনগণের পক্ষ না নিয়ে সরকারী ভুমি দখলকারীদের পক্ষে কাজ করছে। তারা জানান, রাস্তা বন্ধ হলে তাদের বন্দীদশা বরণ করতে হবে। গ্রামের বস্তি এলাকায় পোল্ট্রি হ্যাচারী করলে এলাকা বায়ু ও পরিবেশ দুষিত হবে। সাধারণ গরীব মানুষগুলোর বসবাসের অযোগ্য হয়ে পড়বে আমাদের বাপ-দাদার এ আবাসস্থল। পরিবেশ দূষণের কবলে পড়বে গোটা এলাকা। বাণিজ্যিক প্রতিষ্টান গ্রামের বস্তিতে করার কারণ কি তা তাদের বোধগম্য হচ্ছে না।
মৌলভীবাজার মৌলভীবাজারে সরকারী রাস্তা, পানি উন্নয়ন বোর্ডের ওয়াপদা বাঁধ ও সরকারী খাস ভুমিতে ব্যাক্তি মালিকানাধীন পোল্ট্রি হ্যাচারী বন্ধের দাবীতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত। গত ১১ নভেম্বর সোমবার দুপুর সাড়ে ১১টায় মৌলভীবাজার প্রেসক্লাবের সামনে অনুষ্টিত হয়। মৌলভীবাজার জেলার কমলগঞ্জ উপজেলার চৈত্রঘাট, প্রতাপী, জগন্নাথপুর, বড়চেগ ও ছয়কুট গ্রামবাসী এ মানববন্ধনে অংশ নেয়। মানববন্ধনে বক্তব্য রাখেন, মোঃ চেরাগ মিয়া, বিজয় ভৌমিক, রইছ মিয়া, মশাহিদ মিয়া, আব্দুল বারী, লেছু মিয়া, জিয়াউর রহমান প্রমূখ। সাবেক ইউপি সদস্য মোঃ চেরাগ মিয়াসহ এলাকাবাসী বলেন, মৌলভীবাজার জেলার কমলগঞ্জ উপজেলার ১নং রহিমপুর ইউনিয়নের চৈত্রঘাট ও প্রতাপি গ্রামের পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া ধলাই নদীর তীরে সরকারী রাস্তা, সরকারী খাস ভুমি দখল করে জনবসতি এলাকায় পরিবেশ দূষণকারী পোল্ট্রি হ্যাচারী তৈরী করছে। তারা বলেন, জনসাধারণের চলাচলের ১৮ থেকে ২৫ প্রস্থ রাস্তা, পানি উন্নয়ন বোর্ডের বাঁধ ও সরকারী খাস ভুমি দখল করে প্রভাবশালীমহল পোল্ট্রি হ্যাচারী করতেছে। তারা সাংবাদিকদের জানান, গত অক্টোবর মাসের ১৩ জেলা প্রশাসক বরাবরে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। অভিযোগ দেয়ার পরও প্রশাসনের পক্ষ থেকে কোন প্রকার প্রদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে না। এমনকি প্রশাসন জনগণের পক্ষ না নিয়ে সরকারী ভুমি দখলকারীদের পক্ষে কাজ করছে। তারা জানান, রাস্তা বন্ধ হলে তাদের বন্দীদশা বরণ করতে হবে। গ্রামের বস্তি এলাকায় পোল্ট্রি হ্যাচারী করলে এলাকা বায়ু ও পরিবেশ দুষিত হবে। সাধারণ গরীব মানুষগুলোর বসবাসের অযোগ্য হয়ে পড়বে আমাদের বাপ-দাদার এ আবাসস্থল। পরিবেশ দূষণের কবলে পড়বে গোটা এলাকা। বাণিজ্যিক প্রতিষ্টান গ্রামের বস্তিতে করার কারণ কি তা তাদের বোধগম্য হচ্ছে না। ষ্টাফ রির্পোটার॥

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •