কুলাউড়ায় কলেজছাত্রের রহস্যজনক মৃত্যু

September 1, 2013, এই সংবাদটি ৪৩৮ বার পঠিত

কুলাউড়ার ভাটেরা ইউনিয়নের বড়গাঁও গ্রামের কলিম মিয়ার পুত্র শাহিন আহমদ (২৩) এর লাশ গতকাল দুপুরে উদ্ধার করেছে কুলাউড়া থানা পুলিশ। পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, শাহিন বেশ কয়েক মাস থেকে মানসিকরোগে ভুগছিল। গতকাল তার নিজ শয়নকক্ষ থেকে তাকে বের হতে না দেখে পরিবারের সদস্যরা তাকে ডাকাডাকি করে কোন সাড়া না পেলে তাদের সন্দেহ হয়। এক পর্যায়ে কক্ষে দরোজা ভেঙ্গে প্রবেশ করলে তারা শাহিনের লাশ ফ্যানের সাথে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখেন। সে তিন ভাইয়ের মধ্যে দ্বিতীয়। ফেঞ্চুগঞ্জ ডিগ্রি কলেজে বিএ দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র শাহিন আত্মহত্যা করেছে বলে প্রাথমিকভাবে জানানো হলেও এর নেপথ্যে আর কোন রহস্য আছে কীনা তা খতিয়ে দেখতে লাশ মর্গে পাঠানো হয়েছে বলে জানিয়েছে কুলাউড়া থানা পুলিশ। কুলাউড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা হাসানুজ্জামান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, তদন্তের প্রতিবেদন সাপেক্ষে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।
কুলাউড়ার ভাটেরা ইউনিয়নের বড়গাঁও গ্রামের কলিম মিয়ার পুত্র শাহিন আহমদ (২৩) এর লাশ গতকাল দুপুরে উদ্ধার করেছে কুলাউড়া থানা পুলিশ। পারিবারিক সূত্রে জানা যায়, শাহিন বেশ কয়েক মাস থেকে মানসিকরোগে ভুগছিল। গতকাল তার নিজ শয়নকক্ষ থেকে তাকে বের হতে না দেখে পরিবারের সদস্যরা তাকে ডাকাডাকি করে কোন সাড়া না পেলে তাদের সন্দেহ হয়। এক পর্যায়ে কক্ষে দরোজা ভেঙ্গে প্রবেশ করলে তারা শাহিনের লাশ ফ্যানের সাথে ঝুলন্ত অবস্থায় দেখেন। সে তিন ভাইয়ের মধ্যে দ্বিতীয়। ফেঞ্চুগঞ্জ ডিগ্রি কলেজে বিএ দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র শাহিন আত্মহত্যা করেছে বলে প্রাথমিকভাবে জানানো হলেও এর নেপথ্যে আর কোন রহস্য আছে কীনা তা খতিয়ে দেখতে লাশ মর্গে পাঠানো হয়েছে বলে জানিয়েছে কুলাউড়া থানা পুলিশ। কুলাউড়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা হাসানুজ্জামান ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে জানান, তদন্তের প্রতিবেদন সাপেক্ষে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। কুলাউড়া প্রতিনিধি॥

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •